মঙ্গলবার, মার্চ ১৯, ২০১৯ ,৫ চৈত্র ১৪২৫
০৩ মার্চ ২০১৯ রবিবার , ৪ : ৫৬ অপরাহ্ন

  • জনপ্রিয়তার শীর্ষে বন্দর উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী নুরুজ্জামান!

    x

    Decrease font Enlarge font

    Upটাইমস নারায়ণগঞ্জ: জাতীয় সংসদ নির্বাচনের রেশ কাটতে না কাটতেই জেলায় জেলায় শুরু হতে যাচ্ছে উপজেলা নির্বাচন। যদিও নারায়ণগঞ্জের ৫টি উপজেলার মধ্যে তিনটি উপজেলায় প্রথম ধাপে ৩১ মার্চ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে তিনটিউপজেলায়  চেয়ারম্যান প্রার্থীর নাম ঘোষণা করেছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ।

    তবে সদর ও বন্দরে এখনো তফসিল ঘোষণা না হলেও   প্রার্থীতা বাছাই নিয়ে নানা আলোচনা সমালোচনা চলছে। বন্দর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে কয়েকজন প্রার্থীর নাম থাকলেও এর মধ্যে নাম শোনা যাচ্ছে সাবেক ছাত্রনেতা, বন্দর উপজেলা রাজনৈতিক অঙ্গণে পরিচ্ছন্ন মানের তরুন সক্রিয় নেতা আলহাজ্ব নুরুজ্জামানের নাম।

    এছাড়াও তিনি দীর্ঘদিন যাবত বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের রাজনীতির সাথে সরাসরি জড়িত, পেশায় ব্যবসায়ী, সৎ, পরোপকারী ও নিরহংকারী তরুণ সমাজসেবক। অন্যদের চেয়ে জনতার রায়ে এখনও পর্যন্ত এগিয়ে আছেন এই তরুণ।

    আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে উপজেল ভাইস  চেয়ারম্যান পদে একজন যোগ্যপ্রার্থী হিসেবে উপজেলাতে সর্বত্র আলোচনার কেন্দ্র বিন্দুতে পরিণত হয়েছেন। এ পদে প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থীর একাধিক নাম শোনা গেলেও এর মধ্যে সাবেক ছাত্রনেতা ও বর্তমান আওয়ামীলীগ নেতা আলহাজ্ব নুরুজ্জামান এর নামই আলোচনায় আসছে বারবার।

    বন্দরবাসী একাধিক সূত্রে জানা যায়, উপজেলা চেয়ারম্যান পদে দলীয় প্রার্থীতার ব্যাপারে এখনো নিশ্চিত না। আর ভাইস চেয়ারম্যান পদে উন্মুক্ত ভাবে নির্বাচনের ঘোষনা দিয়েছেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ। তারুণ্যের গণজোয়ার বলে দিচ্ছে জনপ্রিয়তায় সাবেক ছাত্রনেতা ও আওয়ামীলীগ নেতা নুরুজ্জামানের বিজয় প্রায় নিশ্চিত।  যিনি বন্দর থানা কমিউনিটি পুলিশের সাধারণ সম্পাদক পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি ও বন্দর উপজেলা শেখ রাসেল শিশু কিশোর সংসদের সাধারণ সম্পাদক পদে দায়িত্ব পালন করছেন।

    বন্দর উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নকে মডেল ইউনিয়নে রূপান্তর করার পাশাপাশি শিক্ষাক্ষেত্রে উন্নয়নমূলক পদক্ষেপ গ্রহণ ও মাদকমূক্ত তরুন সমাজ গঠনের প্রতিশ্রুতি নিয়ে মানুষের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন। আলহাজ্ব নুরুজামান এ উপজেলা ভাইস  চেয়ারম্যান পদে সেবা করার সুযোগ পেলে উপজেলার উন্নয়ন, সাধারণ মানুষের জন কল্যাণে কাজ করাসহ স্থানীয়দের ভাগ্যোন্নয়নে কাজ করার কথা জানান। এদিকে গত ২ মার্চ নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ একেএম শামীম ওসমানের ডাকা মাদক-সন্ত্রাস নির্মূলে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে জনসভায় বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী নিয়ে শো ডাউন করে চমক দেখিয়েছেন এই তরুন নেতা। জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা নুরুজ্জামানের মিছিলে জন¯্রােত দেখে হতবাক স্টেজে বসা নেতারাও।