শনিবার, এপ্রিল ২০, ২০১৯ ,৬ বৈশাখ ১৪২৬
১৩ এপ্রিল ২০১৯ শনিবার , ৬ : ২৫ অপরাহ্ন

  • ‘বিচার না পেলে ছেলেকে নিয়ে আত্মহত্যা করবো’

    x

    Decrease font Enlarge font

    0001টাইমস নারায়ণগঞ্জ: ‘বিচার না পেলে ছেলেকে নিয়ে আত্মহত্যা করবো। আর আমাদের মৃত্যুর জন্য জেলা প্রশাসন ও প্রধানমন্ত্রী দায়ী থাকবেন’-স্বামী হত্যার বিচার চাইতে গিয়ে এমন ঘোষণা দেন গৃহবধু রেহেনা আক্তার রেখা।

    শনিবার (১৩ এপ্রিল) সকালে নগরীর চাষাড়ায় প্রেসক্লাবের সামনে ফতুল্লায় সদ্য খুন হওয়া ব্যবসায়ী সেলিম চৌধুরী বিচারের দাবিতে এক মানব বন্ধনে এমন ঘোষণা দেন তিনি। রেহেনা আক্তার নিহত সেলিম চৌধুরীর স্ত্রী।

    মানব বন্ধনে রেহেনা আক্তার রেখা আরও বলেন, যারা আমার স্বামীকে নির্মমভাবে হত্যা করেছে সেই খুনিরা যাতে কিছুতেই পার না পায়। খুনিরা যদি কোনোভাবে পার পেয়ে যায় তাহলে আমার একমাত্র সন্তানকে নিয়ে চাষাড়া শহীদ মিনারে আত্মহত্যা করব। আমার স্বামীর হত্যাকারী মোহাম্মদ আলীসহ তার সহযোগিদের ফাঁসি চাই।

    বক্তাবলী এলাকার সামাজিক সংগঠন- বক্তাবলী ওয়েল  ফেয়ার ট্রাস্ট এ মানব বন্ধনের আয়োজন করে। মানব বন্ধনে রেখা ছাড়াও নিহত সেলিম চৌধুরীর মা মমতাজ  বেগম ও  ছেলে রিতুল চৌধুরী উপস্থিত ছিলো।

    সংগঠনের সভাপতি আল আমিন ইকবালের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে আরো উপস্থিত ছিলেন-সাংবাদিক জামাল উদ্দিন বারী, নারায়ণগঞ্জ কলেজের সাবেক ভিপি আলমগীর হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা খোরশেদ মাস্টার, বক্তাবলী ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য রাসেল চৌধুরী, ট্রাস্টের সাধারণ সম্পাদক মতিউর রহমান ফকির প্রমুখ।

    প্রসঙ্গত ১০ দিন নিখোঁজ থাকার পর ব্যবসায়িক অংশীদার মোহাম্মদ আলীর প্রতিষ্ঠানের প্রাঙ্গণ থেকে মাটি খুঁড়ে ব্যবসায়ী  সেলিম চৌধুরীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে ঘাতক ফয়সাল। ফয়সাল জবানবন্দিতে বলেন, ঝুট ব্যবসায়ী  মোহাম্মদ আলীর নির্দেশে এবং উপস্থিতিতে সেলিমকে হত্যা করে সে। এ মামলার অন্য দুই আসামি মোহাম্মদ আলী ও  সোলায়মানকে ১০ দিনের  চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।